ইতালীর ভেনিসে জলে ডুবে যাওয়া একজন ইতালিয়ানকে উদ্ধার করে বাংলাদেশের নাম গৌরবান্বিত করেছেন কিশোরগঞ্জের আজিবুর রহমান।

0
4957

ইতালীর ভেনিসে জলে ডুবে যাওয়া একজন ইতালিয়ানকে উদ্ধার করে বাংলাদেশের নাম গৌরবান্বিত করেছেন কিশোরগঞ্জের আজিবুর রহমান।  কাজী মাহফুজ রানা , ভেনিস :

৬ নভেম্বর ২০১৯ প্রতিদিনের মতো রেস্টুরেন্টের ডিউটি শেষে রাতের দ্বিপ্রহরে ভেনিসে বাসায় ফিরতে থাকা আজিবুর রহমান যখন ব্রিজের উপর অবস্থান করছিলেন তখন হঠাত পানিতে কিছু একটা পড়ার শব্দ শুনে এদিক ওদিক তাকাতেই চোখে পড়ে ব্রিজের নিচে পানিতে পড়ে ডুবে যাচ্ছে একজন মধ্য বয়সি ইতালিয়ান লোক। আজিবুর রহমান তখন কিংকর্তব্যবিমূঢ়। আশেপাশে লোকদের ডাকাডাকি করে সাহায্য নিতে চাইলেন । জড়ো হওয়া লোকজন এম্বোলেন্স কল করলেন কিন্তু এম্বোলেন্স আসতে আসতে লোকটি হয়তো বাঁচবেন না তাই বরফের মতো শীতল ও স্রোতের পানিতে নিজে ঝাপিয়ে পড়লেন।
ততক্ষণে লোকটির মাথা নিচে ডোবা অবস্থায় তলিয়ে যাচ্ছিল।আজিবুর খুব দ্রুত সাঁতরে লোকটিকে ধরতে সক্ষম হলো
এবং লোকটির মাথা পানি থেকে উলটিয়ে পানির উপরে তুলে ধরে অনেক কষ্টে টেনে নিয়ে এলেন কানালের পাশে কিন্তু হিম শীতল ঠান্ডা পানিতে নিথর হয়ে আসা শরীর ও সিমেন্ট করা ঢালো কানালের কুল বেয়ে উপর চড়তে পারছিলেন না। ঠিক তখনই চলে আসে স্পিড বুটে এম্বোলেন্স ও লোকাল পুলিশ। তাৎক্ষণিক লোকটাকে বোটে তুলে একদিকে চলছে লোকটির চিকিৎসা ও অপরদিকে চলছে পুলিশের পক্ষ থেকে আজিবুর রহমানকে নানা প্রশ্ন বান। পুলিশের একের পর এক কঠিন ও সন্দেহের তীর মারা প্রশ্নেও নির্ভীক , সাহসিকতা ও দৃঢ় আত্মবিশ্বাসে পুলিশদের বুঝাতে সক্ষম হলেন যে তিনি লোকটাকে শুধু বাঁচাতে মানবতার দায়ীত্ববোধেসাগরের কানালে ঝাপিয়ে পড়েছেন।ততক্ষণে ইমার্জেন্সি চিকৎসায় লোকটির জ্ঞান ফিরতে শুরু করে। শেষ পর্যন্ত পুলিশদের বিশ্বাস হলো আজিবুর আসলেই একজন মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তাই সকলেই তাকে বাহবা দেন ।এমনকি পরদিন আজিবুর রহমানের কর্মস্থলে মিডিয়া ও পুলিশ এসে তাকে সাধুবাদ জানান।আজিবুর রহমান ভেনিসে বাংলাদেশী কমিউনিটির ও বাংলাদেশের গৌরব অর্জন করেছেন। আজিবুর রহমান আমাদের অহঙ্কার। একটি মহত কাজ দেশ ও জাতিকে গর্বিত করে। তিনি তা প্রমাণ করলেন। চ্যানেল প্রবাহের সাথে একান্ত সাক্ষাতে গত দশই জানুয়ারী এ তথ্য তুলে ধরেন আজিবুর রহমান।

চ্যানেল প্রবাহের প্রতিনিধির সাথে একান্ত সাক্ষাতে আজিবুর রহমান